আন্তর্জাতিকবিনোদনসমগ্র খুলনাসমগ্র চট্টগ্রামসমগ্র ঢাকাসমগ্র বরিশালসমগ্র ময়মনসিংহসমগ্র রাজশাহীসমগ্র সিলেট
Trending

দেখুন, সেই রাতে সানি কী করলেন!

‘ওয়ান নাইট স্ট্যান্ড’ সানির নতুন রোমান্টিক থ্রিলার।

ভরপুর সাসপেন্সের এই ছবিতে ফের সানি ধরা দিয়েছেন সেনসেশনাল লুকে।

সে কথা রেখেছেন সানি।

ট্রেলরেই দর্শকদের মন জয় করেছেন সানি।

সানি মানেই পর্দা জুড়ে আলাদা উষ্ণতা।

এ ছবিতেও তার স্বাদ পাবেন দর্শক।

বলিউড মানেই গ্ল্যামারাস একটা দুনিয়া। এই দুনিয়ার চাকচিক্য দেখলে চমকে যান ভক্তরা। সিনেমার পাশাপাশি বলি তারকাদের ড্রেসিং সেন্স নিয়েও হইচই কম থাকে না।

প্রিয় তারকাদের পোশাক নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় চর্চার কমতি কখনই হয় না। আর সেই তারকার নাম যখন সানি লিওনি, ভক্ত-উন্মাদনার আঁচ করাই যায়! এবার বাথটবে চোখ ধাঁধানো পোশাকে ফটোশ্যুট করলেন সানি।

যা ভাইরাল হতে সময় লাগেনি। আর বেবি ডলের সঙ্গে সঙ্গেই ভাইরাল হয়েছে তাঁর ফটোশ্যুটের ড্রেসও।

বৃহস্পতিবার সানি তাঁর বাথটব ফটোশ্যুটের কিছু ছবি শেয়ার করেন সোশ্যাল মিডিয়ায়। আর সেই ছবি দেখে উন্মাদনা ধরে রাখতে পারেননি সানির ভক্তরা। সবুজ সিক্যুইনের জাম্পশ্যুটে দেখা যায় সানিকে। তবে হ্যাঁ, এই জাম্পশ্যুটের স্টাইল খানিক আলাদা। দেখতে জাম্পশ্যুট হলেও ঠিক যেন সেইরকম নয়।

তাহলে সানি কী পরেছিলেন?

৩৯ বছরের সানি গাঢ় সবুজ রঙের স্প্যাগেটি স্ট্র্যাপ আর প্যান্টস পরেছিলেন। আর সানির এই পোশাক বানিয়েছেন ডিজাইনার shelves of Nirmooha. সেই সঙ্গে সোনার গয়না পরেছিলেন সানি।

গয়না ছিল Antarez Jewels। সেই সঙ্গে চুল স্ট্রেট করে রেখেছিলেন। চোখে ডার্ক কালো কাজল। আর সেই সঙ্গে গাঢ় লাল লিপস্টিক ঠোঁটে। তবে সানির এই ফ্যাশন কিন্তু খুবই সাধারণ।

খুব কম মেকআপেই চোখ ধাঁধিয়ে দিয়েছেন সানি। সানি মানেই যে কোনও সময় উষ্ণতায় ভরপুর। তাঁর বেবি ডল ড্রেসও এখন ভাইরাল। আর তাই নতুন কাপলরা হানিমুনের জন্যও বেছে নিচ্ছেন এই বেবি ডল ডেস্ক।

সানি যে স্ট্রেট প্যান্টসটা পরেছিলেন তার দাম ১৫,৫০০ টাকা। পেয়ে যাবেন নির্মোহার ওয়েবসাইটেও। আপনিও কিন্তু সানির এই স্টাইল সহজেই করতে পারেন। আর সানির এই পোশাক পছন্দ হলেও পেয়ে যাবেন এই ওয়েবসাইট থেকেই। এবার তাহলে বাথটবে ফটোশ্যুট করুন আপনিও।

অন্য পুরুষের সঙ্গে বিছানায় সানিকে দেখলে মুষড়ে পড়েন ড্যানিয়েল

কিছুদিন আগেই জন্মদিন গেল সানি লিওনির স্বামী ড্যানিয়েল ওয়েবারের। প্রিয় মানুষের জন্মদিনেই মনের গোপনে জমে থাকা অনেক থাই অকপটে বলে ফেললেন সানি। সানি জানিয়েছেন, একটি মেল মারফৎ তাঁদের প্রথম যোগাযোগ হয়।

এরপর তাঁরা একে অপরের নম্বর আদান প্রদান করে কথা বলা শুরু করেন। একদিন টানা তিন ঘন্টা কথা বলার পর তাঁর মনে হল সানি-ড্যানিয়েল একে অপরকে বহুদিন হল চেনেন। বেশ কয়েকবছর তাঁরা লং ডিসট্যান্স রিলেশনশিপে ছিলেন। কাজ শুরু করার পর মনে হল একসঙ্গে কাজ করতেই পারেন। সেই শুরু। একসঙ্গে কাজ করার পর ঘনিষ্ঠতা বাড়ে।

সানির মনে হয় তাঁর জীবনের সেরা মানুষ হলেন ড্যানিয়েল। আর এখন তো তাঁরা তিন সন্তানের অভিভাবক। সানি আরও জানিয়েছেন, প্রথমদিকে তাঁর পর্নোগ্রাফিতে অভিনয় মেনে নেননি ড্যানিয়েল।

অন্য পুরুষের সঙ্গে সানিকে তাঁর দেখতে খারাপ লাগত। এরপরই সানি সিদ্ধান্ত নেন পর্নোগ্রাফিতে অভিনয় করলে ড্যানিয়েলের সঙ্গেই করবেন। তবে সেসব এখন অতীত। বলিউডে এখন স্বমহিমায় বিরাজ করছেন সানি।

কালো আঙুরের মাঝে সানি! বাথটব ছাড়িয়ে উষ্ণতা এখন নেটপাড়াতেও

বাথটবের জলে ভাসছে কালো আঙুর। আর তাকমধ্যে শুয়ে আছেন অতিপরিচিত এক মোহময়ী। গায়ে একখন্ড সুতোও নেই। এই মহিলা কিন্তু সকলেরই খুব পরিচিত। তিনি সানি লিওনি। উষ্ণতা ছড়ানো সানির অভ্যেস। কথায় কথায় নিজেকে ভাইরাল করে তুলতে তাঁর জুড়ি মেলা ভার।

এবার যখন তিনি প্রথম বাথটবে শুয়ে এই ভিডিয়ো করলেন তখন চমকে গিয়েছিলেন সকলেই। হেমন্তের শীতল দিনেই বাথটবে শুয়ে উষ্ণতা বাড়ালেন তিনি। শ্যুট হল।

আর সেই শ্যুটের এক ঝলক ভিডিয়ো তিনি নিজেই পোস্ট করলেন ইন্সটাগ্রামে। চোখ কপালে তুলে হাঁ করে সকলেই গিলছেন সেই ভিডিয়ো। আপনিও দেখবেন নাকি!

 

Facebook Comments

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button